চার্লসের সূত্র বিবৃত ও চার্লসের সূত্রের গাণিতিক রূপ প্রতিপাদন

চার্লসের সূত্র বিবৃত ও চার্লসের সূত্র প্রতিপাদন করা হলো

1987 চার্লসের সূত্র বিবৃত ও চার্লসের সূত্র প্রতিপাদন কর?খ্রিঃ চার্লস এবং 1802 খ্রিঃ গেলুস্যাক সতন্ত্র ভাবে তাপমাত্রার সাথে গ্যাসের আয়তনের সম্পর্ক সূত্র আবিষ্কার করেন তাই এ সত্রটিকে চার্লসের সূত্র বা গেলুস্যাক এর সূত্র বলা হয়। সূত্রটি নিম্নরুপ:

চার্লসের সূত্র বিবৃত:

স্থির চাপে নির্দিষ্ট ভরের কোনো গ্যাসের আয়তন প্রতি ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা বৃদ্ধি বা হ্রাসের ফলে 00C অরামাত্রায় তার আয়তনের 1/273 ভাগ হারে যথাক্রমে বৃদ্ধি বা হ্রাস পায়।

চার্লসের সূত্রের গাণিতিক রূপ প্রতিপাদন:

মনেকরি, নির্দিষ্ট চাপে কোনো ভরের গ্যাসের আয়তন 00C তাপমাত্রায় V0 এবং t0C তাপমাত্রায় Vt

তাহলে,

10C তাপমাতায় গ্যাসের আয়তন V₁ = V0 + V0  এর 1/ 273

20C তাপমাতায় গ্যাসের আয়তন V2 = V0 + V0  এর 2/ 273

t0C তাপমাতায় গ্যাসের আয়তন Vt = V0 + V0  এর t/ 273

= V0 (1+ t/ 273)

= V0 {( 273 +  t)/ 273}

যদি t10C ও t20C তাপমাত্রায় গ্যাসের আয়তন V1 ও V2 হয় তবে,

চার্লসের সূত্র বিবৃত1 /2 নং হতে পাই,

চার্লসের সূত্র প্রতিপাদন

আর্থাৎ স্থির চাপে নির্দিষ্ট পরিমাণ গ্যাসের আয়তন উহার পরম তাপমাত্রার সমানুপাতিক।

লেখচিত্রের সাহায্যে বয়েলের সূত্রের ব্যাখ্যা ব্যাখ্যা কর?

লেখচিত্রের সাহায্যে বয়েলের সূত্রের ব্যাখ্যা ব্যাখ্যা কর?

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top